বৃহস্পতিবার   ৩০ জুন ২০২২   আষাঢ় ১৭ ১৪২৯   ৩০ জ্বিলকদ ১৪৪৩

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
২১৬২

সরকারের কূটকৌশলে নেত্রী জেলে, নেতা বিদেশে: মির্জা আব্বাস

প্রকাশিত: ২০ নভেম্বর ২০১৯  

 

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস বলেছেন, ‘সরকারের কূটকৌশলে আজকে দেশনেত্রী জেলে, আর আমার নেতা বিদেশে। শারীরিক অবস্থার কারণে উনি দেশে আসতে পারছেন না। তারপরও বিএনপি নেতৃত্বশূন্য হয়ে যায়নি। 

আজ বুধবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দলের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের ৫৫তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয়তাবাদী যুবদল আয়োজিত দোয়া মাহফিলে এ কথা বলেন মির্জা আব্বাস।

বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য আরো বলেন, ‘দেশের বাইরে থেকেই তারেক রহমান সাহেব আমাদের দল পরিচালনা করছেন। এটা নিয়ে আবার আওয়ামী লীগের মন্ত্রীরা মাঝেমধ্যে লম্ফঝম্ফ করে ওঠেন। বলে ফেলেন, সবকিছু তারেক রহমানের নির্দেশে হচ্ছে। হ্যাঁ ভাই, তারেক রহমান সাহেব তো আমার দলের ভাইস চেয়ারম্যান। যা কিছু হয়, মিছিল-মিটিং-আন্দোলন সবকিছু তো উনার কথা মতোই হবে। আপনাদের কথা মতো করব না কি?

যুবদলের নেতাদের উদ্দেশে মির্জা আব্বাস বলেন, আপনারা কি ভুলে গেছেন, ৯০-এর আগে এই যুবদল নেতৃত্ব দিয়ে এরশাদকে পরাজিত করেছিল। আজকে তারেক রহমানের জন্মবার্ষিকীতে আমি আপনাদের স্মরণ করিয়ে দিতে চাই, যুবদলের ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনুন, এই দেশকে স্বাধীন-সার্বভৌম থাকতে সাহায্য করুন। আমি বিশ্বাস করি, যুবদল সেটা পারবে। আমাদের বয়স হয়ে গেছে, তবুও বলছি, যদি তেমন কিছু করতে পারেন, আমাদের পাশে পাবেন।

এ সময় বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার শারীরিক অবস্থা ও তাঁর চিকিৎসা ব্যবস্থা নিয়ে সরকারের অবস্থানের সমালোচনা করেন মির্জা আব্বাস। তিনি বলেন, আজ দেশের এমন অবস্থা যে, আমাদের নেত্রী কেমন আছেন, কী অবস্থায় আছেন, সেটাও আমরা জানতে পারছি না।

বিএনপির নেতা আরো বলেন, কিছুদিন পর পর একটা গৃহপালিত মেডিকেল বোর্ড হয়। সেই বোর্ড কী বলে, তা আমরা বুঝে উঠতে পারি না। যা বলা হয়, তা অত্যন্ত ভীতিকর। একজন বলেন, অবস্থা মোটামুটি ভালো, তবে হায়াত মউত আল্লাহর হাতে। কী ইঙ্গিত বহন করে এ কথায়? উনারা (সরকার) কি দেশনেত্রী খালেদা জিয়াকে জেলের ভেতরে রেখে মেরে ফেলতে চান?

জাতীয়তাবাদী যুবদলের সভাপতি সাইফুল আলম নীরবের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকুর সঞ্চালনায় দোয়া মাহফিলে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য দেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু, জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল ও সহসাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ প্রমুখ।

এই বিভাগের আরো খবর