শুক্রবার   ০১ জুলাই ২০২২   আষাঢ় ১৬ ১৪২৯   ০১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
৫৩

১৮ ঘণ্টা বসে থেকেও মিলছে না ফেরির নাগাল

নিজস্ব প্রতিবেদক  

প্রকাশিত: ৮ মে ২০২২  

ঈদ শেষে কাজে ফিরতে ২১ জেলা থেকে আসা হাজার হাজার বাস ও যাত্রীরা দীর্ঘ যানজটের কারণে ১৮ ঘন্টা মহাসড়কে বসে থেকেও নাগাল পাচ্ছেন না ফেরির। পুরো রাস্তা জুড়ে যানজটের কারণে যাত্রীদের ১০ থেকে ১২ কিলোমিটার পায়ে হেঁটে যেতে হচ্ছে লঞ্চ ও ফেরিঘাটে।

দৌলতদিয়া ঘাটে যাত্রী ও চালকদের দুর্ভোগের শেষ নেই।

রোববার সকাল থেকেই ঢাকা-খুলনা মহাসড়কে গোয়ালন্দ বাজার ছাড়িয়ে ১০ কিলোমিটার যানবাহনের দীর্ঘ যানজট এবং লঞ্চ-ফেরিঘাটে যাত্রীদের উপচেপড়া ভিড় দেখা যায়। 


তীব্র যানজটে ছোট ছোট যানবাহন, ভ্যান, রিক্সা, মাহেন্দ্র-ইজিবাইকে কয়েকগুণ বেশি ভাড়া দিয়েও তারা পৌঁছাতে পারছেন না ফেরি ও লঞ্চ ঘাটে।

১৭ থেকে ১৮ ঘণ্টা মহাসড়কে আটকে থাকার পর নানা ধরনের দুর্ভোগ মাথায় নিয়ে ফেরির নাগাল পেতে হচ্ছে। 

গত দুই দিন ধরে দৌলতদিয়া ফেরিঘাটের জিরো পয়েন্ট থেকে গোয়ালন্দ বাজার ছাড়িয়ে মহাসড়কের ১০ কিলোমিটার এলাকায় যাত্রীবাহী বাস, পণ্যবাহী ট্রাক যানজটে আটকে থাকতে দেখা গেছে। রাত যাপন, খাওয়া-দাওয়া, টয়লেটের ব্যবস্থা না থাকায় মারাত্মক সমস্যায় পরেছেন এসব মানুষ।

বর্তমানে ৪টি ফেরিঘাট দিয়ে ১৯টি ফেরি ও ২২টি লঞ্চ দিয়ে যাত্রী ও যানবাহন পারাপার করা হচ্ছে। অতিরিক্ত যাত্রী বোঝাই করে ঝুঁকি নিয়ে চলতে দেখা গেছে লঞ্চগুলোকে।

দৌলতদিয়া ঘাট এলাকায় অতিরিক্ত দায়িত্বে থাকা ফরিদপুর র‌্যাব ক্যাম্পের ডিএডি মোঃ রফিকুল ইসলাম বলেন, ঈদের পর যে কয়দিন কর্মমুখী মানুষ চলাচল করবেন সে কয়দিন তারা আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি দেখভাল করার দায়িত্বে থাকবেন। যাত্রীদের নিরাপত্তায় সার্বক্ষণিক পাশে থাকবেন বলে জানান তিনি।

এই বিভাগের আরো খবর