বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২   শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯   ১২ মুহররম ১৪৪৪

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
৫১

ছাত্রলীগ নেতাকে মারধরের অভিযোগে চবির মূল ফটক অবরোধ

নিজস্ব প্রতিবেদক  

প্রকাশিত: ১ জুন ২০২২  

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ছাত্রলীগের এক নেতাকে স্থানীয় এক ব্যবসায়ী কর্তৃক মারধরের অভিযোগে ভোর থেকে ক্যাম্পাসের মূল ফটক বন্ধ রেখেছে ছাত্রলীগের উপ-গ্রুপ ‘ভিএক্স’।

মঙ্গলবার (৩১ মে) দিবাগত রাত ৩টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের জিরো পয়েন্ট ও ১ নম্বর গেটের মধ্যবর্তী মাজারগেট এলাকায় ভিএক্স উপ-গ্রুপের নেতা প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয়কে মারধরের অভিযোগ ওঠে স্থানীয় ডিস ব্যবসায়ী ও ফতেপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সদস্য মো. হানিফের বিরুদ্ধে। 

এ ঘটনার পরপরই বিশ্ববিদ্যালয়ের মূল ফটক আটকে শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের ক্যাম্পাসে প্রবেশ বন্ধ করে দেন উপ-গ্রুপ ভিএক্সের নেতাকর্মীরা।

এ পরিস্থিতিতে সকালের চারটি ট্রেন ক্যাম্পাসে না আসায় ভোগান্তিতে পড়েছেন শিক্ষার্থীরা। ষোলোশহর, ক্যান্টনমেন্ট, চৌধুরীহাট, ফতেয়াবাদসহ বিভিন্ন স্টেশনে অপেক্ষারত শিক্ষার্থীরা পড়েন দুর্ভোগে। পরে অধিকাংশ বিভাগের ক্লাস-পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে।

ষোলোশহরে ট্রেনে অপেক্ষারত শিক্ষার্থী ইফতেখার মাহি বলেন, অনেকক্ষণ শাটলের অপেক্ষায় বসে ছিলাম, গরমের মধ্যে আর পারছি না। এখন বাসায় চলে যাচ্ছি।
মারধরের শিকার প্রদীপ চক্রবর্তী দুর্জয় জাগো নিউজকে বলেন, আমি ১ নম্বর গেট থেকে আসছিলাম। এমন সময় হানিফ ও তার ছোটভাই ইকবালসহ ১০-১২ জন আমার ওপর অতর্কিত হামলা করে। আমি নিজেকে সেফ করে চলে এসেছি তবে আমার গাড়িটা এলোপাতাড়ি কুপিয়ে ভাঙচুর করেছে।

এ ঘটনায় অভিযুক্ত মো. হানিফ জাগো নিউজকে বলেন, এই ঘটনা সম্পর্কে আমি কিছুই জানি না। ঘুম থেকে উঠে জানতে পারলাম আমাকে অভিযুক্ত করা হচ্ছে।
বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া বলেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন ও পুলিশ প্রশাসন আলোচনা করে সমাধানে যাওয়ার চেষ্টা করছে। অন্যায়ভাবে যদি কেউ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর ওপর হামলা করে তাহলে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এই বিভাগের আরো খবর