শনিবার   ১৫ জুন ২০২৪   আষাঢ় ১ ১৪৩১   ০৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৫

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
১০৮

মাহাদুদ দাওয়া আল-ইসলামিয়া চারাগাঁও জয়পুর মাদ্রাসায় অভিভাবক সমাবেশ

আহম্মদ কবির,তাহিরপুর প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৫ মে ২০২৩  

সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চল টাঙ্গুয়ার হাওর পাড়ে সদ্য প্রতিষ্ঠিত মাহাদুদ দাওয়া আল-ইসলামিয়া চারাগাঁও জয়পুর মাদ্রাসায় শিক্ষার মানোন্নয়ন বিকাশিত করার লক্ষ্যে অভিভাবক সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 

আজ(২৫মে) বৃহস্পতিবার দুপুরে,মাহাদুদ দাওয়া আল-ইসলামিয়া চারাগাঁও জয়পুর মাদ্রাসার আয়োজনে,মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত অভিভাবক সমাবেশে মাদ্রাসা মজলিসের আমেলার সদস্য মোঃ নুরুল আমিন এর সভাপতিত্বে,মাদ্রাসার শিক্ষা সচিব মাওলানা মাসউদ আহমদ হাসানীর সঞ্চালনায়,আভিভাবকদের সাথে শিক্ষার মানোন্নয়নে মতবিনিময় করেন মাদ্রাসার পরিচারক মাওলানা শিহাব বিন জাহাঙ্গীর।অন্যান্য বিষয়ে বক্তব্য রাখেন মাদ্রাসার সহকারি শিক্ষক মাওলানা লোকমান হাকিম প্রমুখ। এতে উপস্থিত ছিলেন মাদ্রাসার অভিভাবক শফিকুল ইসলাম,অভিভাবক কপিলনুর,অভিভাবক নুর জামাল,অভিভাবক গোলাম মৌলা,অভিভাবক তছলিমনুর,অভিভাবক শাহ জাহান,অভিভাবক শাহাবুদ্দিন,অভিভাবক হাবলু মিয়া,অভিভাবক নুর হোসেন মিয়া,ইমলাক মিয়া,আলী আহমদ,নুর আলম মিয়া প্রমুখ। এছাড়াও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যাক্তিসহ বিভিন্ন লোকজন উপস্থিত ছিলেন।

 

অভিভাবক সমাবেশে মাদ্রাসার পরিচালক মাওলানা শিহাব বিন জাহাঙ্গীর বলেন একজন দায়িত্বশীল অভিভাবক হিসাবে আপনাদের প্রতিদিন মাদ্রাসায় এসে আপনার সন্তানের শিক্ষার অগ্রগতি খোঁজ-খবর রাখা প্রয়োজন,যেহেতু আমরা সবাই দরিদ্র পেটের তাগিদে কর্মব্যস্ত থাকি এতে সপ্তাহে একদিন হলেও খোঁজ নেন।শুধু তাই নয় শিক্ষার্থীর পরিষ্কার -পরিচ্ছন্ন হয়ে মাদ্রাসায় আসা,তার সার্বিক বিষয়ে অভিভাবকদেরকেই যত্নশীল হতে হবে।প্রত্যেক অভিভাবক অন্তত সপ্তাহে একদিন শিক্ষকদের নিকট আপনাদের সন্তানদের খোঁজ-খবর নেয়া উচিত। নিজের সন্তানকে পড়ালেখাসহ নৈতিক উৎকর্ষতার তাগিদ দেয়ার পাশাপাশি অন্যের সন্তানকেও সে বিষয়ে উৎসাহী করে তুলতে হবে।শিক্ষার্থীকে মাদ্রাসায় নিয়মিত উপস্থিত নিশ্চিত করা ও শ্রেনীর পাঠ গ্রহনে উৎসাহ দেয়া প্রয়োজন।উনি বলেন শিক্ষকদের যেমন অভিভাবকদের পরামর্শ বা যুক্তিগুলো মন দিয়ে শুনতে হবে তেমনি অভিভাবকদেরকেও শিক্ষকদের পরামর্শ মেনে চলতে হবে।অভিভাবক হচ্ছেন একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অবিচ্ছেদ্য অংশ।শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পড়াশোনার পরিবেশ উন্নয়নকল্পে তারা শিক্ষকের সঙ্গে আলোচনায় অংশগ্রহণের মাধ্যমে পরামর্শ প্রদান করে থাকেন।এভাবেই যদি শিক্ষক অভিভাবক হাতে হাত কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে চলতে পারি তবে সেদিন আর বেশি দূরে নয়।আমাদের এই হাওর কেন্দ্রিক প্রত্যন্ত অঞ্চলেও মানসম্মত ইল্ম শিক্ষা নিশ্চিত হবে।আমাদের ঘরে ঘরে ইল্ম শিক্ষা চালু হবে।

এই বিভাগের আরো খবর