শুক্রবার   ০৭ আগস্ট ২০২০   শ্রাবণ ২৩ ১৪২৭   ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
৮৩

সাহেদের অস্ত্র মামলার তদন্ত শেষ, আজই আদালতে অভিযোপত্র দাখিল

তরুণ কণ্ঠ রিপোর্ট

প্রকাশিত: ৩০ জুলাই ২০২০  

 

করোনার নমুনা পরীক্ষা না করে ইচ্ছেমতো রিপোর্ট দেওয়া, অর্থ আত্মসাৎসহ প্রতারণার নানা অভিযোগে গ্রেপ্তার রিজেন্ট হাসপাতালের মালিক মো. সাহেদের অস্ত্র মামলার তদন্ত শেষ করেছে ঢাকা মহানগর (ডিএমপি) গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। আজ বৃহস্পতিবার আদালতে ওই মামলার অভিযোগপত্র দাখিল করা হবে বলে জানা গেছে। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর মিন্টো রোডের ডিএমপির মিডিয়া সেন্টার আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ডিবির অতিরিক্ত কমিশনার আবদুল বাতেন এ তথ্য জানিয়েছেন।

আবদুল বাতেন বলেন, ‘ইতোমধ্যে আমরা রিজেন্ট হাসপাতালের মালিক মো. সাহেদের বিরুদ্ধে দায়ের হওয়া অস্ত্র মামলায় তদন্ত শেষ করেছি আমরা। আজই ওই মামলার অভিযোগপত্র আদালতে দাখিল করা হবে।’

এর আগে গত ২২ জুলাই এক সংবাদ সম্মেলনে আবদুল বাতেন বলেছিলেন, ‘মো. সাহেদকে রিমান্ডে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। সে জিজ্ঞাসাবাদে তাঁর দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে উত্তরা-১১ নম্বর সেক্টরের ২০ নম্বর রোডের ৬২ নম্বর বাসা থেকে ব্যক্তিগত গাড়ি ও অবৈধ জব্দ করা হয়। তবে তিনি ওই অবৈধ অস্ত্র দিয়ে কখনো কাউকে ভয়-ভীতি দেখিয়েছেন বা ব্যবহার করেছেন কি না, সে ব্যাপারে আমরা এখন পর্যন্ত কোনো তথ্য-প্রমাণ পাইনি। এ ছাড়া জব্দ অস্ত্র ও মাদকের বিষয়ে অন্য কারো সংশ্লিষ্টতা পাওয়া যায়নি।’

এর আগে গত ১৮ জুলাই দিবাগত রাতে উত্তরার ১১ নম্বর সেক্টরের সোনারগাঁও জনপদ রোডের ৬২ নম্বর বাসার সামনে অভিযান চালায় ডিবি। অভিযান পরিচালনা করে মো. সাহেদের ব্যক্তিগত নম্বরবিহীন গাড়ি, ১০ বোতল ফেনসিডিল এবং পাঁচ বোতল বিদেশি মদ জব্দ করা হয়।

পরে এ বিষয়ে অতিরিক্ত ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) উপপু‌লিশ ক‌মিশনার না‌দিয়া ফারজানা সংবাদ সম্মেলনে কথা বলেন। সে সময় তিনি বলেন, ‘১৯-এর ধারায় একটি মামলা হয়। মামলা নম্বর ১৪। ১৯৭৪ সালের স্পেশাল অ্যাক্টে আরেকটি মামলা হয়। মামলা নম্বর ১৫। উত্তরার ১১ নম্বর সেক্টরের সোনারগাঁও জনপদ রোডের ৬২ নম্বর বাসার সামনে অভিযান চালিয়ে গাড়িটি উদ্ধার করা হয়। সাহেদ সে সময় নিজেই তাঁর গাড়িটি দেখিয়ে দেন।’

এই বিভাগের আরো খবর