মঙ্গলবার   ০৫ জুলাই ২০২২   আষাঢ় ২০ ১৪২৯   ০৫ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

জবিতে স্বশরীরে ক্লাস নিতে অনিচ্ছুক শিক্ষকেরা

মাহির আমির জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়

প্রকাশিত : ০৩:৫১ পিএম, ১৮ জানুয়ারি ২০২২ মঙ্গলবার

গত ১৬ জানুয়ারি (রবিবার) থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষের সকল বিভাগে সশরীরে ক্লাস নেওয়ার সিদ্ধান্ত শুরু হয়েছে।  নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেন, বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন সশরীরে ক্লাস নিতে বললেও আমাদের বিভাগের শিক্ষকরা ক্লাস নিতে অপারগতা প্রকাশ করেছেন শুরু থেকেই। সকল বিভাগের শিক্ষক - শিক্ষার্থীরা নিয়মিত ক্লাস করছে অথচ আমাদের ইচ্ছে থাকা স্বত্বেও কোনো ক্লাস করতে পারছি না। 

 

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক নৃবিজ্ঞান বিভাগের ১৫ তম ব্যাচের শিক্ষার্থী বলেন, " ১৩ ডিসেম্বরে দ্বিতীয় সেমিস্টার ফাইনাল পরীক্ষা শেষ হলেও এখনো আমাদের বিভাগে কোনো ক্লাস শুরু করতে পারে নি।" গত কয়েকদিন আগে চেয়ারম্যান ম্যাম গ্রুপে নোটিশ দিয়েছিল জানুয়ারির ১৬ তারিখে স্বশরীরে ক্লাস শুরু হবে কিন্তু গত কয়েকদিন আগে তিনি বলেন কোর্স শিক্ষকরা রাজি না হলে স্বশরীরে ক্লাস নেয়া সম্ভব নয়।

 

নৃবিজ্ঞান বিভাগের ১৫ তম ব্যাচের শিক্ষার্থীদের ক্লাস প্রতিনিধি (সিআর) মোহনা মেহজাবিন জানান, আমি কোর্স টিচারদের সাথে যোগাযোগ করলে তাঁরা স্বশরীরে ক্লাস নিতে আপত্তি জানায় এবং অনলাইনে ক্লাস নেয়ার কথা বলেন। যারফলে বিভাগের শিক্ষার্থীতের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে সশরীরে ও অনলাইন ক্লাস নিয়ে। 

 

এ বিষয়ে নৃবিজ্ঞান বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. সানজিদা ফারহানা বলেন, আমি নিজেও দু'সপ্তাহ ধরে করোনা আক্রান্ত এবং বিভাগের আরও দু'জন শিক্ষক আক্রান্ত হয়েছে। আমরা চাই না আমাদের বাকি সহকর্মীরা আমাদের জন্য সমস্যায় পড়ুক। 

 

তিনি আরও বলেন, শিক্ষার্থীদের আমরা আপাতত দুসপ্তাহ অনলাইনে ক্লাস করতে বলেছি আগামীকাল আমরা নতুন রুটিন দিয়ে দিবো এবং ১লা থেকে সশরীরে ক্লাস শুরু করবো। মাস্টার্সের পরীক্ষা এবং শ্রেণীকক্ষ সংকটের জন্য আমরা চাইলেও ক্লাস নিতে পারছি না। তবে শিক্ষার্থীদের এ-সব অভিযোগের কোনো ভিত্তি নেই বলেন তিনি।

 

তবে করোনা ভাইরাসের ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে শিক্ষক শিক্ষার্থীরা চিন্তিত কিন্তু এখনো সরকারের পক্ষ হতে স্বশরীরে ক্লাস নেওয়া যাবে না এ প্রসঙ্গে এখনো কোনো আনুষ্ঠানিক বক্তব্য আসেনি।