রোববার   ২১ জুলাই ২০১৯   শ্রাবণ ৫ ১৪২৬   ১৮ জ্বিলকদ ১৪৪০

তরুণ কণ্ঠ|Torunkantho
সর্বশেষ:
বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২ সোমালিয়ায় হোটেলে জঙ্গি হামলায় সাংবাদিকসহ নিহত ৭ জামালপুরে ‘মাথা নেওয়ার গুজবে’ যুবক গ্রেপ্তার সিলেট–সুনামগঞ্জে বন্যা পরিস্থিতি অপরিবর্তিত আসামে বন্যায় আক্রান্ত ৮ লাখ মানুষ, নিহত ৬ কাপ্তাইয়ে পাহাড় ধসে নিহত ২
৪২

শরীয়তপুরে পাওয়ানা টাকা চাওয়ায় সন্ত্রাসী হামলা

শরীয়তপুর প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৮ জুন ২০১৯  

শরীয়তপুর নড়িয়া উপজেলার তেলিপারা ইউনিয়নের  গোলারবাজার গ্রামের সরদার বাড়িতে সরদার বাড়ির সহজ সরল লোকজনে উপর হত্যার উদ্দেশ্যে সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটেছে। সরদার বাড়ির প্রতিবেশী ইব্রাহিম হাওলাদার (২২) ইতি পূর্বে আহত রিপন সরদারের নিকট থেকে বিশ হাজার টাকা ধার নিয়েছিল এমন তথ্য পাওয়া গেছে স্হানীয় সুত্রে।গত ১১ জুন সকাল ১১ টার দিকে পাওয়ানাদার রিপন হাওলাদার ইব্রাহিম হাওলাদার এর নিকট টাকা চাইতে গেলে ইব্রাহিম সন্ত্রাসী ভাষায় কথা বলে এবং রিপনকে হুমকি দেয় তোর টাকা দিবনা পারলে আমার কাছ থেকে উঠিয়ে নিছ। এই পাওয়ানা টাকা চাওয়াকে কেন্দ্র করে রিপন সরদার ও ইব্রাহিম হাওলাদার এর মধ্যে বাক বিতন্ডা হয় এবং পরিশেষে তাদের মধ্যে হাতাহাতি হয়। সকালের ঘটনাকে কেন্দ্র করে রিপন সরদারের প্রতিবেশী সন্ত্রাসী ইব্রাহিম হাওলাদার(২২), বিল্লা হাওলাদার (৩০) উভয় পিতা মতি হাওলাদার,সিপন(২৫), সেন্টু হাওলাদার(৫৫), অনিক দর্জি(১৯), রনি দর্জি (২৩) আরো অজ্ঞাত নামা ভাড়া করা সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে মৃত খলিল সরদারের স্ত্রী এবং তার ছেলেদের কে হত্যার উদ্দেশ্যে ধারালো দেশীয় অস্ত্র লাঠি সোটা নিয়ে তাদের উপর সন্ত্রাসী হামলা চালায়। গত ১২ জুন রাত শারে বারোটার দিকে ইব্রাহিম হাওলাদার সহ তার ভাড়া করা সন্ত্রাসী বাহিনী নিয়ে
মৃত খলিল সরদারের ছেল রিপন সরদার,সুরুজ সরদার,স্বপন সরদারকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে হত্যা উদ্দেশ্যে মাথায় কুপিয়ে জখম  করে। 
সন্ত্রাসী ইব্রাহিম হাওলাদারের সন্ত্রাসী বাহিনীর তান্ডবের শব্দ শুনে আহত সুরুজ সরদারের মা তাজু বেগম(৫৫), এবং তার স্ত্রী পারভিন বেগম(৩০), বোন বেবি আক্তার আহত ব্যক্তিদেরকে বাচাতে আসলে সন্ত্রাসীরা তাদেরকে ও এলোপাথাড়ি ভাবে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে এবং সন্ত্রাসীরা বেবি আক্তারের গলায় থাকা এক ভরি ওজনের একটি স্বর্নের চেইন, এবং একটি এন্ড্রয়েডে মোবাইল ফোন, একটি টর্চলাইট নিয়ে যায়।  মৃত খলিল সরদারের বাড়িতে আহত ব্যক্তিদের চিৎকারের শব্দ শুনে স্হানীয় লোকজন ছুটে আসে ততোক্ষনে সন্ত্রাসীরা ঘটনাস্হল হতে পালিয়ে যায়।
স্হানীয় লোকজন ঘটনাস্থল থেকে আহত ব্যক্তিদেরকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে প্রেরন করে। আহত ব্যক্তিরা চিকিৎসাদিন অবস্থাায় শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। আহত সুরুজ সরদারের স্ত্রী পারভিন বেগম বাদি হয়ে বিজ্ঞ চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলী আদালতে একটি সি.আর   মামলা দায়ের করে।
 

এই বিভাগের আরো খবর